মোঃ নাসির, নিউ জার্সি (আমেরিকা) প্রতিনিধিঃ
কাতার বিশ্বকাপে দারুণ এক ম্যাচ উপহার দিলো উত্তর আমেরিকার পরাশক্তি যুক্তরাষ্ট্র ও দীর্ঘ ৬৪ বছর পর বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পাওয়া ওয়েলস। প্রথমার্ধে দাপট দেখায় যুক্তরাষ্ট্র, দ্বিতীয়ার্ধে ওয়েলস।নিজেদের প্রথম ম্যাচে ওয়েলসের মুখোমুখি যুক্তরাষ্ট্র। ক্রিশ্চিয়ান পুলিসিচের বাড়ানো থ্রু বলে দুর্দান্ত ফিনিশিংয়ে যুক্তরাষ্ট্রকে এগিয়ে নিয়ে যান টিমোথি ওয়েয়াহ।জমে ওঠা লড়াইয়ে পিছিয়ে পড়ার পর গ্যারেথ বেলের সফল পেনাল্টিতে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে পয়েন্ট ভাগাভাগি করলো ওয়েলস।
সোমবার (২১ নভেম্বর) বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় কাতারের আহমেদ বিন আলী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় এ খেলা।ম্যাচের ৯ মিনিটে সার্জেন্টের শট গোলবারে লেগে ফিরে আছে নাহলে শুরুতেই এগিয়ে যেতে পারতো তারা।পুরো ম্যাচে মাঝমাঠ দখল করে রাখলে তেমন সুযোগ তৈরি করতে পারছিলো না যুক্তরাষ্ট্র। অবশেষে সেই সুযোগটি আসে ৩২তম মিনিটে। মাঝমাঠ থেকে বল পেয়ে চেলসির উইঙ্গার পুলিসিচের বাড়ানো বলে ডি বক্সের ভেতর থেকে গোলরক্ষককে পরাস্ত করে দলকে এবারের বিশ্বকাপে প্রথম গোল এনে দেন টিমোথি উইয়াহ। প্রথমার্ধের শেষে যুক্তরাষ্ট্র আরো কিছু গোলের সুযোগ তৈরি করলেও সেগুলো ওয়েলস রক্ষণভাগে এসে পরাস্ত হয়। যার ফলে এক গোলের লিড নিয়ে খুশি থাকতে হয় অল আমেরিকানদের।বিরতির পর খেলতে নেমে ছন্দ খুঁজে পায় ওয়েলস। একের পর এক আক্রমণে যুক্তরাষ্ট্রের রক্ষণভাগের পরীক্ষা নেয় দলটি। ৬৪তম মিনিটে সমতায় ফিরতে পারত তারা। ফ্রি-কিক থেকে উড়ে আসা বল হেডে ঠেকাতে পারেননি জিমারম্যান ও অ্যাডামস। বল চলে যায় বেলের কাছে; বক্সে তিনি হেড দেন ডেভিসের কাছে। টটেনহ্যামের এই ডিফেন্ডারের জোরালো হেড ঝাপিয়ে ঠেকান আমেরিকার গোলরক্ষক। এক মিনিট পর কর্ণার থেকে উড়ে আসা বল ওয়েলসের কেউ হেড নিলে একটুর জন্য জালে জড়ায়নি।৮১তম মিনিটে বক্সে গ্যারেথ বেলকে ফাউল করেন জিমারম্যান; পেনাল্টির বাঁশি বাজায় রেফারি। সফল স্পট কিকে লক্ষ্যভেদ করে দলকে সমতায় ফেরাতে ভুল করেননি সাবেক রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড। পরবর্তীতে আর কোনো গোল না হলে ড্র নিয়েই মাঠ ছাড়ে দুই দল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Don`t copy text!