মোঃ সাইফুল খন্দকার পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধিঃ

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় সোনালী ব্যাংক শাখার আওতায় স্বনির্ভর প্রকল্পের মাধ্যমে কর্তব্যরত কর্মকর্তার দ্বারা লোনের নামে প্রতারণার অভিযোগকে কেন্দ্র করে, কলাপাড়া প্রেসক্লাবের সামনে বৃহস্পতিবার ১ সেপ্টেম্বর সকাল ১১টার সময় মানববন্ধন করেন ভুক্তভোগীরা স্বনির্ভর গোষ্ঠী তৈরি করিয়ে, বীমার নাম করে লোন করার নামে, অসহায় মানুষের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে লক্ষাধিক টাকা হাতিয়ে নেয় ব্যাংক কর্মকর্তা ও দালাল চক্র। হতদরিদ্র, অসহায় স্বামী পরিত্যাক্তা, নিরক্ষর মানুষের সাহায্যের নামে ঋণ জালিয়াতি থেকে মুক্তির দাবি, ২০১৫, ১৬, ১৭ সালে সোনালী ব্যাংকের দায়িত্বে থাকা ফিল্ড অফিসার মনির স্যার নামে ব্যাংক কর্মকর্তা,মাঠকর্মী জাহানারা বেগম মাকসুদা বেগম, সভানেত্রী পিয়ারা বেগম, ভোটার আইডি কার্ড ও ছবি ব্যবহার করে সোনালী ব্যাংকের আওতায় স্বনির্ভর প্রকল্পের মাধ্যমে প্রত্যেকের নামে ৩০-৪০ হাজার টাকা লোন নিয়ে আত্মসাৎ করেছে একটি প্রতারক চক্র।
ঋণ জালিয়াতি করায় অর্ধশতাধিক মহিলাদের সংসার ভাঙ্গার উপক্রম ও ঋণ অনিয়ম থেকে মুক্তি চায় অসহায় ভুক্তভোগী নারি গন,
তাদের দাবি আমাদেন সরলতার সুযোগ নিয়েছেন তৎকালীন ব্যাংক কর্মকর্তারা তাই সরকারও বর্তমান আইনের কলাপাড়ায় সোনালী ব্যাংক শাখার আওতায় স্বনির্ভর প্রকল্পের মাধ্যমে কাছে সুষ্ঠ তদন্ত করার জোর দাবি জানান, আমরা কখনো সোনালী ব্যাংকে ঋন অথবা পাওয়ার জন্য জাইনাই আমাদের কোনো ঋনের টাকা অথবা বই আমাদের হাতে কোনো কর্মকর্তারা বুজিয়ে দেয় নি, বলে দাবি জানান ভুক্তভোগীরা।এ বিষয়ে কলাপাড়া সোনালী ব্যাংকের ব্যবস্থাপক নাজমুল আহসান বক্তব্য দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Don`t copy text!