চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে র‌্যাবের অভিযানে দেশ বন্ধু নামক পল্লী উন্নয়ন/যমুনা নামে এনজিও’র পরিচালকসহ ৫জনকে আটক করেছে র‌্যাব-৫ এর চাঁপাইনবাবগঞ্জ ক্যাম্পের সদস্যরা। বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর)অভিযানে নেতৃত্ব দেন কোম্পানী অধিনায়ক লেঃ কমান্ডার রুহ-ফি-তাহমিন তৌকির এবং কোম্পানী উপ অধিনায়ক সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ আমিনুল ইসলাম দিবাগত রাতে শিবগঞ্জ উপজেলার কানসাট ইউনিয়নের আব্বাস বাজার-বিশ্বনাথপুর থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হচ্ছে কানসাট বহলাবাড়ি গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে ও দেশ বন্ধু নামক পল্লী উন্নয়ন/যমুনা এর পরিচালক নাইমুল ইসলাম (২৯), ও সেলিম রেজা (৩১), পার্বতীপুর গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে আসমাউল হক (২৫), মোবারকপুর ইউনিয়নের কানসাট শিকারপুর গ্রামের সুলতান আলীর ছেলে সোহেল রানা (২৫) ও কানসাট ইউনিয়নের শিবনগর গ্রামের মৃত আব্দুল কাশেমের ছেলে কাইউম রেজা (২২)।

বৃহষ্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) র‌্যাব ক্যাম্পের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, আটককৃতরা দীর্ঘদিন ধরে প্রতারনা চক্রের সাথে সংঘবদ্ধভাবে গ্রামের সহজ সরল সাধারণ মানুষের টাকা গ্রহণ করে অধিক মুনাফা দেয়ার লোভ দেখিয়ে দেশ বন্ধু পল্লী উন্নয়ন/যমুনা নামে ভূয়া এনজিও প্রতিষ্ঠা করে। এনজিওতে বিভিন্ন গ্রাহককে অধিক মুনাফার লোভ দেখিয়ে গরীব অসহায় লোকদের টাকা বিনিয়োগ এবং টাকা ঋণ নেয়ার জন্য উস্কানি প্রদান করে।

অসহায় লোকজন তাদের উস্কানিতে টাকা বিনিয়োগ করে এবং তাদের এনজিও হতে ফাঁকা চেক জমার মাধ্যমে ঋণ উত্তোলন করলে এনজিও কর্মীরা ব্লাংক চেক ব্লাক মেইল এর মাধ্যমে অতিরিক্ত টাকা এবং গ্রাহকের জমাকৃত কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। অসংখ্য ভূক্তভোগীর অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব চাঁপাইনবাগঞ্জের একটি চৌকস গোয়েন্দা দল দীর্ঘদিন ধরে এবিষয়ে ছায়া তদন্ত শুরু করে। ছায়া তদন্তের এক পর্যায়ে কানসাট আব্বাস বাজার এলাকা হতে দেশ বন্ধু/যমুনা এনজিও এর মালিকসহ প্রতারক চক্রের ৫ জন সক্রিয় সদস্যকে আটক করা হয়।

এঘটনায় শিবগঞ্জ থানায় মামলা রুজু করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Don`t copy text!