মোঃ ইকবাল মোরশেদ স্টাফ রিপোর্টার।

লালমাই উপজেলার বাগমারা ইউনিয়ন উপ-স্বাস্থ্য সহকারী রবিউল আলমের বিরুদ্ধে এক নারীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে।

ওই নারী তার সন্তানকে চিকিৎসার জন্য রবিউলের চেম্বারে নিয়ে গেলে এমন ঘটনা ঘটে।
এ বিষয়ে রোগীর মা অভিযোগ কারি লুৎফুর নাহার জেলা সিভিল সার্জন বরাবর ভুল চিকিৎসা ও যৌন হয়রানির একটি অভিযোগ দাখিল করেন।
এর আগেও তার বিরুদ্ধে ভুয়া ডিগ্রিসহ নানা অভিযোগ রয়েছে।
অভিযোগে জানা যায়, ২০ মে খেলাধুলা করতে গিয়ে তামজিদ (৮) আঘাত পেলে তাকে চিকিৎসার জন্য রবিউলের চেম্বারে যান।
পরে ২৮ মে পুনরায় গেলে তামজিদকে রবিউল মারধর করেন এবং নানা আপত্তিকর কথা বলেন।

জেলা সিভিল সার্জন অফিসের প্রধান প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোঃ অফিসার আলমগীর হোসেন বলেন,
রবিউল আলমের বিরুদ্ধে অনেক অভিযোগ রয়েছে।

তামজিদের বাবা আবদুল করিম ডাক্তার রবিউল আলমের উপযুক্ত শাস্তি দাবি করেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published.