হাকিকুল ইসলাম খোকন ,যুক্তরাষ্ট্র সিনিয়র প্রতিবাদ ঃবাংলাদেশ জাতীয় সংসদে সরকার দলীয় হুইপ আতিউর রহমান আতিক গত ২৯ মে নিউইয়র্কে বাংগালি অধ্যশিত জ্যাকসন হাইটসে প্রবাসীদের এক সমাবেশে বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার বিচক্ষণতাপূর্ণ নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মডেলে পরিণত হয়েছে। এটা যাদের সহ্য হচ্ছে না, তারাই এই প্রবাসে বসে নির্জলা মিথ্যাচার করছে। একাত্তরের স্টাইলে তারা ধর্ম গেল ধর্ম গেল যিকির তুলেছে। আসলে মিথ্যাচারে লিপ্তরা হচ্ছে একাত্তরের রাজাকার আর আলবদরের প্রেতাত্মা
এহেন ষড়যন্ত্র সম্পর্কে বাংলাদেশের চেতনায় বিশ্বাসী প্রতিটি প্রবাসীকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে।খবর বাপসনিউজ।
প্রবাসী শেরপুর জেলা সমিতির ইউএসএ-এর উদ্যোগে এক মতবিনিময় ও সম্বর্ধনা অনুষ্টান অনুষ্টিত হয় । অনুষ্ঠানের আহবায়ক ও সংগঠনের প্রধান উপদেষ্টা সাংবাদিক আবুল কাশেমের সভাপতিত্বে এ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগ নেতা আতিউর রহমান আতিক এমপি আরো বলেন, গ্রাম-গঞ্জের চেহারা পাল্টে গেছে। উন্নয়নের পরশ পাচ্ছেন সর্বস্তরের মানুষ। তাই নিরপেক্ষভাবে সকলে ভোট দেয়ার সুযোগ পেলে বঙ্গবন্ধুৃর নৌকার নিরঙ্কুশ বিজয় কেউই ঠেকিয়ে রাখতে পারবে না।
এটাই বাস্তবতা। এবং এটাই সত্য। সকল প্রবাসীকে আমন্ত্রণ জানাচ্ছি নিজ এলাকায় যান এবং প্রত্যক্ষ করুন বর্তমান বাংলাদেশ।

সভায় স্বাগত বক্তব্যে সাংবাদিক আবুল কাশেম তৃনমূল থেকে উঠে আসা আতিকুর রহমান আতিককে শেরপুরে রাজনীতিতে রাজনৈতিক বরপুত্র বলে অভিহিত করে ছাত্র জীবনের সরৃতি চারণ করতে গিয়ে তিনি বলেন মাননীয় হুইপ আমার শ্রদ্ধাভাজন বন্ধু ১৯৭১ সনে মহান স্বাধীনতা যুদেদ সক্রিয় অংশগ্রহণ করেন । ১৯৭৯ সালে শেরপুর সরকারী কলেজের ছাত্র সংসদে ভিপি নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তাঁর রাজনৈতিক টারনিং পয়েনট শুরু হয়।১৯৯০ সনে তিনি সদর উপজেলার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। ১৯৯৬ সনের ১২ জুন প্রথম বারের সংসদ সদস্য হন । যা এখনও অব্যাহত রয়েছে । অথ্যাৎ তিনি টানা ৫ম বারে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে দ্বিতীয় মেয়াদে তিনি মহান জাতীয় সংসদের হুইপের দায়িত্ব পালন করছেন । তিনি তাঁর সাথে ছাত্র সংসদে নির্বাচিত কর্মকর্তা হয়ে কাজ করে নিজেকে গর্বিত বলে উল্লেখ করেন ।তিনি জেলার সামগ্রিক উন্নয়নের ধারাবিবরণীর পাশাপাশি শেরপুর জেলা সদরে পূর্ণাঙ্গ একটি ইউনিক বিশ্ববিদ্যালয়, মেডিকেল কলেজ এবং শেরপুর জেলাকে রেল যোগাযোগের আওতায় আনার প্রতিশ্রুতির দ্রুত বাস্তবায়ন দেখতে চান। সেই সংগে জামালপুর ফেরী ঘাট থেকে সাতপাকিয়া- বলাইয়ের চর- চকসাহাবদি- কুমড়ার চর – জংগলদী – ভীমগঞ্জ বাজার পর্যন্ত আঞ্চলিক সড়কের দ্রত সংস্কারের জোর দাবী জানানো হয় ।এর জবাবে আতিক এমপি বলেন, বিষয়টি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টিতে রয়েছে। সম্ভাব্যতা যাচাই করা হচ্ছে। অগ্রাধিকারের তালিকাতেও দেখেছি। এখন শুধু সময়ের ব্যাপার। এ সময় তিনি শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য এবং দীর্ঘায়ু কামনায় সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন।
 এতে অন্যান্যের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন শেরপুর জেলা সমিতির সভাপতি মামুন রাশেদ, সেক্রেটারি মোস্তফা সাদী, সাবেক সভাপতি নাহিদ রায়হান, জান্নাত রহমান তারামনি, আক্তারুজ্জামান, সারোয়ার আলম সিরাজুল ইসলাম, নাইস চৌধুরী, রাকিবুল ইসলাম। অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য দ রাখেন জামালপুর জেলা সমিতির সাবেক সভাপতি জিল্লুর রহমান এবং বাংলাদেশ প্রতিদিনের উত্তর আমেরিকা সংস্করণের নির্বাহী সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা লাবলু আনসার।   হুইপের স্ত্রী  শান্তনা রহমান শান্তা, কন্যা ডা. শারমিন রহমান অমি এবং অপিও তারা শেরপুর তথা বাংলাদেশের সাম্প্রতিক উন্নয়ন-অগ্রগতির কথা বলেন।  

অনুষ্টানের প্রধান অতিথি হুইপ আতিকুর রহমান আতিক এমপিকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান ছোট মনি সা’দ । আর হুইপ পত্নীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান নূরা ।বাংলাদেশ ও আমেরিকার জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে অনুষ্টানের শুভ সূচনা করা হয় । অনুষ্টানে সাংস্কৃতিক পর্বে সংগঠনের শিল্পীরা দেশের গান পরিবেশন করেন ।অনুষ্টান শেষে সবাইকে নৈশ ভোজে আপ্যায়ন করা হয় ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.